Thursday, January 24, 2019 10:03 am
Spread the love

নোয়াখালী  :

নোয়াখালীর সুবর্ণচরে স্বামী-সন্তানদের বেঁধে নারীকে গণধর্ষণের ঘটনায় আদালতে সোপর্দকৃত সাত আসামির পাঁচ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার দুপুরে জেলার জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ২ নম্বর আমলি আদালতের বিচারক নবনীতা গুহ এ আদেশ দেন।

এর আগে সকালে গ্রেপ্তারকৃত আট আসামির মধ্যে সাতজনকে আদালতে সোপর্দ এবং প্রত্যেকের সাত দিন করে রিমান্ড আবেদন করেন চরজব্বার থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. ইব্রাহিম খলিল।

তিনি বলেন, ‘আজ রোববার ভোরের দিকে সালাউদ্দিন নামের এজাহারভুক্ত আরো এক আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাকে সোমবার আদালতে সোপর্দ করা হবে। এ ঘটনায় এ পর্যন্ত এজাহারভুক্ত পাঁচজনসহ মোট আটজন আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এর মধ্যে বিভিন্ন ধাপে গ্রেপ্তারকৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। আদালতে সোপর্দের সময় ভিন্ন ভিন্ন দরখাস্তে প্রত্যেকের সাত দিন করে রিমান্ড চাওয়া হয়। পরবর্তীকালে আদালত আজ দুপুরে সাত আসামির উপস্থিতিতে রিমান্ড আবেদন শুনানি শেষে সাতজনের প্রত্যেকের পাঁচ দিন করে রিমান্ড মঞ্জুর করেন।’

রিমান্ড মঞ্জুরকৃত আসামিরা হচ্ছেন- সুবর্ণচর উপজেলার চরজুবলি ইউনিয়নের মধ্য বাগ্যা গ্রামের আহাম্মদ উল্যাহর ছেলে বাদশা আলম বাসু, মৃত ইসমাইলের ছেলে মো. সোহেল, মৃত আবদুল মান্নানের ছেলে মো. স্বপন, আবুল কাশেমের ছেলে ইব্রাহিম খলিল বেচু, মৃত খোরশেদ আলমের ছেলে সাবেক ইউপি সদস্য রুহুল আমিন, মোতাহের হোসেনের ছেলে জসিম উদ্দিন ও টোকাইয়ের (স্থানীয় নাম) ছেলে হাসান আলী।


Spread the love

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন