Friday, November 22, 2019 11:55 am
Spread the love

 মারা গিয়েছেন এটিএম শামসুজ্জামান। সোমবার রাতে দাবানলের মতো ছড়িয়ে পড়ে এই খবর। শোকে ভেঙে পড়ে গোটা ঢালিউড। যদিও গোটাটাই ভুয়ো খবর। কারণ যখন সব জায়গায় অভিনেতার মৃত্যুর খবরে ছয়লাপ। তখন পাড়ার মরে দোকানে চা খাচ্ছিলেন এটিএম শামসুজ্জামান।

‘মারা গিয়ে বর্ষীয়ান অভিনেতা এটিএম শামসুজ্জামান’। এমন তথ্য প্রথম মেলে ফেসবুকে। তারপর ফেইসবুক থেকে খবরে প্রচারিত হয় একাত্তর টিভিসহ একাধিক বেসরকারি টেলিভিশনের। খবরটি প্রকাশ হওয়ার পর থেকেই আত্মীয়-স্বজনরা ফোনে খোঁজখবর নিচ্ছেন তার। অনেকে ফোনে না পেয়ে বাসায়ও চলে আসছেন। এমনকি তাঁর সহশিল্পীরাও এ গুজবের ফাঁদে পা দেন। নিরুপায় হয়ে তাই একরকম বাধ্য হয়ে এক প্রতিবেশির ফেইসবুক অ্যাকাউন্ট থেকে লাইভে এসেছিলেন তিনি।

অভিনেতা বলেন, ” পুরো ঘটনায় তিনি খবরই বিরক্ত। আমার মৃত্যুর খবরে যখন ছয়লাপ গনমাধ্যম, তখন পাড়ার মোড়ে দোকানে চা খাচ্ছিলাম। পাশ থেকে কেউ একজন বললেন, আপনি নাকি মারা গেছেন? শুনে আকাশ থেকে পড়লাম। আমি তো এখনও বেঁচে আছি। তাহলে আমার মৃত্যুর গুজব ছড়ানো হলো কেন?” একই সঙ্গে তিনি আরও বলেন,” আমার মৃত্যুর খবর রটিয়ে কারও কোনও লাভ নেই। তাই আমার ধারনা, যারা মৃত্যুর গুজব ছড়িয়েছে তারা…খায় মনে হয়। যেদিন মারা যাব সেইদিন তো আর কেউ বাঁচিয়ে রাখতে পারবে না।”

অভিনেতার কথায়, ” ভুয়া খবরটি ছড়ানোর পর থেকে রাত জেগে কেটেছে তার পরিবারের সদস্যদের। শামসুজ্জামান স্ত্রী রুনি জামান জানান “সারারাত আমারা প্রায় না ঘুমিয়ে কাটিয়েছি। আত্মীয়-স্বজনরা ফোন করে খোঁজখবর নিচ্ছেন। যারা দূরে থাকেন সবাই ওনাকে নিয়ে টেনশন করেছে। কোন কারণ ছাড়াই আমাদেরকে এরকম ভোগান্তির মধ্যে ফেলল একাত্তর টিভি। তারা আমাদেরকে ফোন দিয়ে আসল ঘটনাটা জানতেই পারতেন।” এভাবেই টিভি মাধ্যমের ওপর ক্ষোভ উগরে দিলেন তিনি।’

১৯৬৫ সাল থেকে অভিনয়ের সঙ্গে যুক্ত শামসুজ্জামান। তবে শুরুটা ছিল সহকারী পরিচালক হিসেবে। তাছাড়া বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্রে চিত্রনাট্যও লিখেন তিনি। ৭৮ বছর বয়সী এ অভিনয়শিল্পী বার্ধক্যজনিত কারণে অভিনয় কিছুটা কমিয়ে দিলেও এখনও অভিনয়ের সঙ্গেই যুক্ত আছেন তিনি। দীর্ঘ অভিনয় জীবনে পাঁচবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছেন তিনি। ১৯৭৬ সালে চলচ্চিত্রকার আমজাদ হোসেনের ‘নয়নমনি’ চলচ্চিত্রে খলনায়কের চরিত্রে অভিনয় করে প্রশংসা সিনেমহলে সাড়া ফেলে দিয়েছিলেন তিনি।


Spread the love

এই নিউজ পোর্টালের কোনো লেখা কিংবা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি

আরও পড়ুন